একটা ধারণা সবার মনে বদ্ধমূল হয়ে আছে যে, বেশি ক্যালসিয়াম গ্রহণের মাধ্যমে অস্টিওপোরোসিস ঠেকানো যায়। কিন্তু হার্ভার্ড গবেষকদের গবেষণা থেকে জানা যায় যে, দৈনিক প্রয়োজনীয় পরিমাণ প্রোটিন গ্রহণ করার মাধ্যমেও অস্টিওপোরোসিস থেকে বাঁচা যায়। গবেষকরা ৩৯ জন রজঃনিবৃত্ত হয়নি এমন মহিলাদের নিয়ে একটি গবেষণা চালান। তাদের আরডিএর সমপরিমাণ (সাধারণত প্রতি কেজি ওজনের জন্য ০·০৮ থেকে ১·০ গ্রাম) প্রোটিন গ্রহণ করতে দেয়া হয়। এক সপ্তাহ পর দেখা যায় যে, তাদের প্রস্রাবের সাথে কম এ্যাসিড, ক্যালসিয়াম এবং হাড় সম্বন্ধীয় প্রোটিন বের হয়, যা থেকে ধারণা করা হয় যে, হাড়ের ক্ষয় হ্রাস পেয়েছে। ধারণা করা যায় যে, যখন প্রোটিন বেশি ভাঙ্গে তখন এ্যাসিড বাড়ে। এই এ্যাসিডকে নিষ্ত্র্নিয় করার জন্য হাড় থেকে ক্যালসিয়ামমুক্ত হয় তাই গবেষকদের ধারণা উচ্চমাত্রার প্রোটিন অস্টিওপোরোসিস ঠেকাতে পারে। যদি প্রোটিন বেশি গ্রহণ করতে ব্যর্থ হন, তবে অতিরিক্ত পরিমাণ শাকসবজি, জাম এবং বাদাম গ্রহণ করা বাড়ান। কারণ এরা এ্যাসিড হতে দেয় না। ফলে হাড়ের সুরক্ষা নিশ্চিত হয়।

**************************
ডা· নাদিয়া নূর
বাংলাদেশ মেডিক্যাল কলেজ
দৈনিক ইত্তেফাক, ১০ মে ২০০৮