স্বাস্থ্যকথা

কিডনী ও মূত্রসংবহনতন্ত্র

(Page 4 of 6)   « Prev  2  3  
4
  5  6  Next »
কিছু লোকের মুত্রপথের সংক্রমণে আক্রান্ত হওয়ার প্রবণতা বেশি থাকে। এ রকম একটি গোষ্ঠী হচ্ছে মহিলা। ২০ শতাংশ মহিলা সারাজীবনে মুত্রপথের সংক্রমণে ভুগবেই। এর প্রধান কারণ তাদের শারীরিক গঠন। মহিলাদের মুত্রনালি পুরুষদের মুত্রনালির চেয়ে ছোট, যার কারণে ব্যাকটেরিয়া দ্রুত মুত্রনালিতে প্রবেশ করতে পারে। সাম্প্রতিক এক গবেষণায় দেখা গেছে, মহিলাদের রক্তের ধরন বারবার মুত্রপথের সংক্রমণে ভুমিকা রাখে। এসব মহিলার মুত্রপথের কোষে ব্যাকটেরিয়া সহজে সংযুক্ত হতে পারে।
মূত্রতন্ত্র কী মূলত কিডনি ও কিডনি থেকে যেসব নালি প্রস্রাবের থলিতে চলে গেছে এবং যার মাধ্যমে প্রস্রাবের নির্গমন হয়, সেই মূত্রপথের সমন্বয়ে মূত্রতন্ত্র গঠিত। জীবাণু যদি এই তন্ত্রে প্রবেশ করে সংক্রমণ ঘটায়, তাহলে সে অবস্থাকে বলা হয় মূত্রতন্ত্রের প্রদাহ বা ইউরিনারি ট্র্যাক্ট ইনফেকশন।
অনেকেরই বিশেষ কোনো কারণ ছাড়াই ঘন ঘন প্রস্রাব হতে দেখা যায়। কারো কারো রাতে ঘুম ভেঙে যায় প্রস্রাবের বদভ্যাসের কারণে। কিন্তু পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে হয়ত তেমন কোনো কারণ উদ[ &ৗ২৫০৯; ]ঘাটন করা যায় না। আবার কারো কারো কোনো সুস্পষ্ট কারণ বা কিছু একটা যে ঘটতে যাচ্ছে তার লক্ষণ পাওয়া যেতে পারে। তবে যেভাবেই ঘটুক না কেন, যাদের ঘন ঘন প্রস্রাব হচ্ছে তাদের ক্ষেত্রে যে কোনো পরিমাণে দেহের ওজন কমাতে পারলেই প্রস্রাব নিয়ন্ত্রণ করা অনেকটা সহজ হবে। বিশেষত ডায়াবেটিস হতে যাচ্ছে এমন মহিলাদের ক্ষেত্রে কথাটি আরো সত্যি। তাদের রক্তে স্বাভাবিক অবস্হার চেয়ে বেশি পরিমাণে গ্লুকোজ থাকে, কিন্তু ডায়াবেটিস হয়েছে বলে শনাক্ত করা হয়নি।
বাড়িতে বসে রক্তচাপ জানুন ওয়ার্ল্ড হাইপারটেনশন লিগের উদ্যোগে ২০০৫ সাল থেকে প্রতিবছর ১৭ মে বিশ্ব উচ্চ রক্তচাপ দিবস পালিত হয়ে আসছে। এর লক্ষ্য হলো উচ্চ রক্তচাপ সম্পর্কে সচেতনতা সৃষ্টি। এবারের দিবসের প্রতিপাদ্য বিষয় ছিল ‘বাড়িতে বসে আপনার রক্তচাপ জানুন’।
পুরুষের স্বাস্থ্য সমস্যা অনির্দিষ্ট মূত্রনালীর প্রদাহকে চিকিৎসা পরিভাষায় বলে নন-স্পেসিফিক ইউরেথ্রাইটিস। এটি এমন একটি অবস্থা যেখানে মূত্রনালীতে প্রদাহ হয় অথবা মূত্রনালী ফুলে যায়। যেসব পুরুষ যত্রতত্র যৌন ক্রিয়া করে এবং যে পুরুষের একাধিক যৌন সঙ্গিনী রয়েছে তাদের এ রোগ হওয়ার ঝুঁকি বেশি থাকে।
পুরুষের স্বাস্থ্য সমস্যা যদি আপনার মূত্রনালী পথে রস নিঃসরণ হয়, তাহলে সম্ভবত আপনার যৌনবাহিত সংক্রমণ রয়েছে যা আপনি অন্যের মধ্যে ছড়াতে পারেন। এ ক্ষেত্রে অবশ্যই আপনি ডাক্তার দেখাবেন, এমনকি আপনার উপসর্গ চলে গেলেও।
পুরুষের স্বাস্থ্য সমস্যা মূত্রনালীতে সংক্রমণ হলে ও জ্বালা করলে তাকে মূত্রনালীর প্রদাহ বা ইউরেথ্রাইটিস বলে। মূত্রনালী হচ্ছে একটি নল যা মূত্রথলি থেকে প্রস্রাব বহন করে। পুরুষের মূত্রনালী থাকে পুরুষাঙ্গের মধ্যে। এটা বীর্য ও শুক্রাণুকেও পুরুষাঙ্গের বাইরে বের করে দেয়। মহিলাদের ক্ষেত্রে মূত্রনালী শুধু মূত্রথলি থেকে প্রস্রাব বহন করে বের করে দেয়।
বিভিন্ন কারণে মূত্রথলিতে পাথর হতে পারে। কিডনি থেকে মূত্রথলি পর্যন্ত যেকোনো স্থানে জীবাণু দ্বারা সংক্রমণ হলে পাথর হতে পারে। দেখা গেছে অনেক কারণের সমন্বয়ে পাথর সৃষ্টি হয়। তবে মূল কথা হলো, শরীরের বিভিন্ন অসুখে এবং খাবারের উপাদানের তারতম্যে রক্তের গঠনের মাঝে পরিবর্তন আসে। এর ফলে প্রস্রাবের নিষ্কাশিত বা বেরিয়ে যাওয়া পদার্থেরও তারতম্য হয়।
যদি আপনি ৫০ বছরের কম বয়সী পুরুষ হন তাহলে আপনার প্রস্রাবে ইনফেকশন হওয়ার সম্ভাবনা বেশ কম। এ ক্ষেত্রে সাধারণত এক কোর্স অ্যান্টিবায়োটিক দিয়ে চিকিৎসা করা হয়। কখনো কখনো মূত্রথলি, প্রোস্টেট কিংবা কিডনি দেখার জন্য পরীক্ষা করার পরামর্শ দেয়া হয়, বিশেষ করে তিন মাসের মধ্যে যদি দু’বার বা তার বেশি বার ইনফেকশন হয়, অথবা যদি কিডনি সংক্রমিক হয়।
গত মাসে বিশ্ব কিডনি দিবস পালিত হলো। এ বছর বিশ্ব কিডনি দিবসের প্রতিপাদ্য বিষয় ছিল বেশ চমকপ্রদ ‘বিস্ময়কর কিডনি। আশার কথা হলো, অসংখ্য মানুষ ক্রনিক কিডনি রোগে ভুগলেও একটু সজাগ-সচেতন থাকলে একে প্রতিরোধ করা সম্ভব।
(Page 4 of 6)   « Prev  2  3  
4
  5  6  Next »

Categories