স্বাস্থ্যকথা

খাদ্য ও পুষ্টি

(Page 5 of 6)   « Prev  2  3  4  
5
  6  Next »
একটা ধারণা সবার মনে বদ্ধমূল হয়ে আছে যে, বেশি ক্যালসিয়াম গ্রহণের মাধ্যমে অস্টিওপোরোসিস ঠেকানো যায়। কিন্তু হার্ভার্ড গবেষকদের গবেষণা থেকে জানা যায় যে, দৈনিক প্রয়োজনীয় পরিমাণ প্রোটিন গ্রহণ করার মাধ্যমেও অস্টিওপোরোসিস থেকে বাঁচা যায়।
অপেক্ষাকৃত সাদা ভাত, সাদা ময়দার রুটি, আঁশবিহীন চিনি, শর্করা সমৃদ্ধ বেকারী বিস্কুট, চিপ্‌স ইত্যাদি খাবার মোটা হবার প্রবণতা বাড়িয়ে দিতে পারে, ঘটাতে পারে স্বাস্থ্য বিপত্তি।
সুন্দর সুস্থ দীর্ঘ জীবনের জন্য খাদ্যের ভূমিকা মুখ্য। সুতরাং খাদ্য গ্রহণের ব্যাপারে সচেতন থাকা প্রয়োজন, খাবার গ্রহণের ক্ষেত্রে পরিমিতি জ্ঞান থাকতে হবে। ক্ষুধা নিবৃত্তিসহ দেহের কাজকর্ম সুষ্ঠুভাবে পরিচালিত করে দেহকে সুস্থ, সবল ও কর্মক্ষম রাখার জন্য যেসব উপাদান প্রয়োজন, সেসব উপাদানসমৃদ্ধ দ্রব্যকেই ‘খাদ্য’ বলা হয়। খাদ্যের উপাদানগুলো হলোঃ ১) আমিষ, ২) শ্বেতসার/শর্করা, ৩) চর্বি/স্নেহ, ৪) ধাতব/খনিজ লবণ, ৫) খাদ্যপ্রাণ, ৬) পানি।
চকোলেট আমেরিকার কোকোয়া নামক একটি গাছের বীজ থেকে আবিষ্কৃত হয়। প্রথম দিকে এর স্বাদ ও পুষ্টিগুণ সম্পর্কে অনেক কিছুই অজানা ছিল। বর্তমানে বিজ্ঞানের অগ্রগতির ফলে প্রকাশিত হচ্ছে চকোলেট সম্পর্কে বিচিত্র তথ্য। চকোলেট হচ্ছে চর্বিজাতীয় খাদ্য উপাদানে ভরপুর একটি খাবার, যার অর্ধেক হচ্ছে কোলেস্টেরল যা সম্পৃক্ত চর্বি হিসেবে চিহ্নিত এবং বাকি অংশে রয়েছে স্বাস্থ্যসম্মত অসম্পৃক্ত চর্বি যা ওলিক অ্যাসিড নামে পরিচিত। ক্যালিফোর্নিয়া ইউনিভার্সিটির এক গবেষক বলেন, চকোলেটে রয়েছে প্রচুর এন্টি-অক্সডেন্ট ফেনোলিকস যা হার্টের জন্য উপকারী।
লেবুর পুষ্টিমান সম্পর্কে অনেকেরই জানা আছে। তবে পুরোপুরি গুণের কথা হয়ত সবারই জানা নেই। এসময়হরেক রকম লেবু পাওয়া যায় বাজারে পাতি লেবু, কমলালেবু, মোসাম্বিলেবু, গন্ধরাজ ও বাতাবিলেবু। ১০০ গ্রাম কাগজি বা পাতিলেবু থেকে যে সমস্ত পুষ্টি উপাদান পাওয়া যায় ভিটামিন সি ৬৩ মিঃ গ্রাম যা আপেলের ৩২ গুন ও আঙ্গুরের দ্বিগুণ, ক্যালসিয়াম ৯০ মিঃ গ্রাম, ভিটামিন এ ১৫ মাইক্রোগ্রাম, ভিটামিন বি ০•১৫ মিঃ গ্রাম, ফসফরাস ২০ মিঃ গ্রাম, লৌহ ০•৩ মিঃ গ্রাম। টাটকা লেবুর খোসাতেও পুষ্টি রয়েছে।
খাদ্যকে বলা হয় দেহের জ্বালানির উৎস। খাদ্য থেকেই দেহের পুষ্টি এবং প্রয়োজনীয় শক্তি। কিন্তু দৈনন্দিন উপযুক্ত খাবারের অভাবে শুধু শারীরিক পুষ্টিরই ব্যাঘাত ঘটে না ক্লান্তি ও অবসাদে ভরে যেতে পারে দেহমন- হারিয়ে যেতে পারে স্বাভাবিক কর্ম-উদ্দীপনা। শরীরকে সতেজ এবং কর্মচঞ্চল রাখতে বিশেষজ্ঞরা বিশেষ বিশেষ খাবারের প্রতি একটু বেশি গুরুত্ব দিয়েছেন।

সালাদ হিসেবে কাঁচা পেপের নানা গুণ
সালাদ খান না এমন পরিবার খুব কমই পাওয়া যাবে। সালাদ এখন খাবার টেবিলের অন্যতম সহ আইটেমেব বেশীর ভাগ ক্ষেত্রে টমেটো, শসা, গাজর, কাঁচামরিচ, পিঁয়াজ, লেটুসপাতা সালাদে স্থান পায়।

রসুন, পেঁয়াজ এবং অন্যান্য ঝাঁঝালো সবজি অনেক ক্ষেত্রেই বেশ উপকারী। ক্যাসার গবেষকদের মতে রসুন ও পেঁয়াজ নিয়মিত খেলে পুরুষরা প্রষ্টেট ক্যাসারের হাত থেকে রেহাই পেতে পারে। চীন দেশের গবেষকরা এ ব্যাপারে আরো উচ্চকিত। তারা বলেন, যারা প্রত্যহ ১০ গ্রামের অধিক পরিমাণে রসুন, পেঁয়াজ বা অন্যান্য ঝাঁঝালো স্বাদের সবজি খেয়ে আসছেন, তাদের প্রষ্টেট ক্যাসার হওয়ার ঝুঁকি যারা প্রত্যহ ২.২ গ্রামের কম খাচ্ছেন তাদের অর্ধেক (৫০%)।
পেঁপে একটি খাদ্যমানসমৃদ্ধ ফল। এটি একটি সবজিও। পেঁপেকে রোগ প্রতিরোধক খাদ্যও বলা চলে। সহজপাচ্য, সুস্বাদু, পুষ্টিকর ও সারা বছর সব জায়গায় পাওয়া যায় বলে সবজি ও ফল হিসেবে পেঁপের গুরুত্ব সবচেয়ে বেশি।
দেহের জন্য ক্যালসিয়াম একটি অতি প্রয়োজনীয় উপাদান। অন্যান্য খনিজ পদার্থ থেকে দেহে ক্যালসিয়ামের পরিমাণ বেশী। দেহে শতকরা ৯০-৯৯ ভাগ ক্যালসিয়াম থাকে হাড় ও দাঁতে।
(Page 5 of 6)   « Prev  2  3  4  
5
  6  Next »

Categories