স্বাস্থ্যকথা

চক্ষু

চোখের সমস্যায় বিশেষজ্ঞের পরামর্শ।

প্রশ্নঃ কন্টাক্ট লেন্স কি চোখের জন্যে ক্ষতিকর? উত্তরঃ বিশেষজ্ঞ চিকিৎসককে দিয়ে পরীক্ষা করে এবং নিয়ম মেনে চললে কন্টাক্ট লেন্স চোখের জন্য ক্ষতিকর নয়।
প্রশ্নঃ চশমা বানাবার পর তা কি আবার চক্ষু বিশেষজ্ঞ দিয়ে পরীক্ষা করানো উচিত?
যার সারা জীবন চশমা লাগেনি তার চল্লিশের পর নিকটে দেখার চশমা লাগাটা একটা প্রাকৃতিক নিয়ম। ইংরেজিতে বলে চৎবংনুড়ঢ়রধ আর বাংলায় চোখে ‘চালশে ধরা’। জন্ম থেকে চল্লিশ বছর (কারো ৩৭ কারও বা ৪৫, বাধা ধরা কোনো নিয়ম নেই) পর্যন্ত আমাদের চোখের ভেতরের লেসটা, যেটা সব দৃশ্যবস্তুকে ফোকাস করে পরিষ্কার দেখতে সাহায্য করে। এটা একটা অটো ফোকাস ক্যামেরার মতো কাজ করে এবং আকাশের প্লেন থেকে হাতের ঘড়ির কাঁটা পর্যন্ত নিমিষেই ফোকাস করতে পারে।

প্রশ্নঃ চশমার দোকান থেকে ‘রেডিমেড’ চশমা কিনে পরা কি ঠিক?

 

(অধ্যাপক ডা· আভা হোসেন) এ কারণে আমি প্রতিটি বস্তু দুটি দেখছি। বাঁ চোখের বিম্ব স্পষ্ট এবং ডান চোখেরটা অস্পষ্ট। একটি বিম্ব থেকে আরেকটি দূরে ও পাশে। আমি কিছুদিন আগে ইসলামিয়া হাসপাতালে বহির্বিভাগে গিয়েছিলাম। ওখানে আমার ডান চোখের একটি পরীক্ষা করে বলা হয়, চোখের ভেতরের অংশ ভালো আছে; শুধু লেন্স সংযোজন করতে হবে। কিন্তু আমার ট্যারা সমস্যার সমাধান না হলে আমি প্রতিটি বস্তু দুটি দেখতে থাকব।
(ডা· আভা হোসেন) আপনি চক্ষু চিকিৎসকের পরামর্শমতো চশমা ব্যবহার না করলে চোখে তো অবশ্যই কম দেখবেন। আপনার চোখে যে পাওয়ারের সমস্যা আছে তা চশমার মাধ্যমে পূরণ করা হয়েছে। আপনাকে বুঝতে হবে-এ চিকিৎসাটি সাময়িক নয়।
(অধ্যাপক ডা· আভা হোসেন) চোখ যদি জ্নগতভাবে ট্যারা থাকে তবে এর চিকিৎসা খুব তাড়াতাড়ি শুরু করা উচিত এবং এতে ফলও খুব ভালো হয়| অবশ্য চিকিৎসা মানেই অপারেশন নয়| পাওয়ারজনিত কারণে যদি ট্যারা হয় তবে চশমা নিয়মিত পরলে চোখ ভালো হয়ে যায়| আবার অনেক ক্ষেত্রে অপারেশন দরকার হয়|

Categories